কুড়িগ্রামে ধরলা নদী খননের বালু দিয়ে বন্যাপ্রবণ নিচু এলাকা ভরাট করনের দাবি এলাকাবাসির

নয়ন দাস,কুড়িগ্রাম জেলা প্রতিনিধিঃ
  • আপডেট টাইম : সোমবার, ২৫ মার্চ, ২০২৪
  • ১৩ বার পঠিত

কুড়িগ্রাম পানি উন্নয়ন বোর্ডের আওতায় ধরলা ব্রীজ সংলগ্ন ধরলা নদীতে খনন ও নদী শাসনের কাজ দ্রুতগতিতে চলছে। স্থানীয় প্রশাসনের দিকনির্দেশনায় ধরলা নদী খননের বালু দিয়ে কুড়িগ্রাম সদর উপজেলার পাঁচগাছি ইউনিয়নের আরাজি ভোগডাঙ্গা উত্তর নত্তয়াবশ বন্যা প্রবন নিচু এলাকাটি ভরাটের মাধ্যমে উঁচু করনের কাজ বাস্তবায়ন করা হচ্ছে।

বালু ভরাটের মাধ্যমে এলাকার সাধারণ মানুষ জনকে বন্যার হাত থেকে মুক্তির যুগান্তকারী সরকারি পদক্ষেপ এটি। এখনো উত্তর নত্তয়াবশ, মোগলবাসা , উলিপুর উপজেলার বেগমগঞ্জ ইউনিয়নে বন্যা প্রবন নিচু এলাকাটি ভরাটের সিংহভাগ কাজ বাস্তবায়ন হয়নি। অথচ অদৃশ্য কারণে এলাকাবাসীর সাথে আলোচনা না করেই ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান বালু ভরাট এর কাজ বন্ধ করে দিয়েছে। স্থানীয় এলাকাবাসীর দাবি দ্রুত বালু ভরাটের কাজ চালু করে বন্যা প্রবন এলাকাটির সাধারণ মানুষকে বন্যার হাত থেকে মুক্তি দেয়া হোক।

গতকাল এ প্রতিবেদকের সাথে কথা হয় পাঁচগাছি ইউনিয়নের আরাজি ভোগডাঙ্গা উত্তর নত্তয়াবশ বন্যা প্রবন নিচু এলাকাটির বাসিন্দা স্থানীয় কৃষক মৃত আকবর আলীর পুত্র নুর ইসলাম, মৃত মেছের উদ্দিন এর পুত্র বায়েজিদ, মৃত আনোয়ার হোসেনের পুত্র আবু আজাদ, ইয়াদ আলীর পুত্র চান মিয়া, মৃত পীর বকস এর পুত্র মজিবর রহমান ও মৃত জেবারত আলীর পুত্র ফরমান আলীর মোগলবাসা চর কৃষ্ণপুর গ্রামের,দারোগ আলী মহুবর ,নূরু মিয়া সাথে।

এ সময় এলাকাবাসী একযোগে জানায় , আমাদের বন্যা প্রবণ এলাকাটিতে বালু ভরাট এর কাজ শুরু হলেও হঠাৎ অদৃশ্য কারণে কাজটি বন্ধ হয়ে গেছে। কাজটি পুরোপুরি বাস্তবায়ন না হলে আমরা মারাত্মকভাবে ক্ষতির সম্মুখীন হবো। আমরা বালু ভরাটের কাজটি পুনরায় চালুর জন্য মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, মাননীয় পানি সম্পদ মন্ত্রী, জেলা প্রশাসক, উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান সহ সংশ্লিষ্ট দপ্তরের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দের সার্বিক সহযোগিতা কামনা করেছে।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর