মুক্তিযুদ্ধের আশা-আকাঙ্খা এখনো আমরা পূরণ করতে পারিনি: নিজাম উদ্দিন

মোঃ শহিদুল ইসলাম সিনিয়র স্টাফ রিপোর্টারঃ
  • আপডেট টাইম : মঙ্গলবার, ৬ সেপ্টেম্বর, ২০২২
  • ২১২ বার পঠিত

 

বাংলাদেশ পেশাজীবী অধিকার পরিষদের কেন্দ্রীয় সদস্য সচিব নিজাম উদ্দিন বলেছেন, মুক্তিযুদ্ধের আশা-আকাঙ্খা এখনো আমরা পূরণ করতে পারিনি। বঙ্গবন্ধুর আদর্শের সমাজ, স্বপ্নের সমাজ গড়ে তোলা সম্ভব হয়নি। আজ কোনো বিরোধের কথা বলতে চাই না, ঐকমত্যের কথা বলতে চাই। রাজনীতি হচ্ছে রাজার নীতি বা নীতির রাজা। তাই ভালো জিনিসটাকে ভালো কাজে ব্যবহারের সুযোগ বেশি। আপনারা যারা সচেতন নাগরিক আছেন তারা সচেতনতার সাথে রাজনীতিতে অংশগ্রহণ করলে রাজনীতির আমূল পরিবর্তন সম্ভব সেই সাথে দেশের উন্নয়ন হবেই। আমি মনে করি সবকিছুতে সাইন ওয়েভ কাজ করে। সব কিছুরই উত্থান-পতন আছে। ষাট ও সত্তর দশকে আমাদের দেশের রাজনীতির স্বর্ণ যুগ।

গত ৪ সেপ্টেম্বর (রোববার) রাত ৮ টায় চট্টগ্রাম নগরীর সিএমইউজে হলে বাংলাদেশ পেশাজীবী অধিকার পরিষদের প্রথম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিলে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি আরো বলেন, বর্তমান রাজনীতিতে পেশি শক্তি, অবৈধ অর্থ ও সেনা সংযোগ দ্বারা রাজনীতিকে কলুষিত করা হয়েছে। যা হচ্ছে রাজনীতির অন্ধকার যুগ। বর্তমানে রাজনীতির সংকট দূর হয়ে ভালোর দিকে আগাচ্ছে। আর আপনারা সবাই যদি রাজনীতিতে এগিয়ে আসেন রাজনীতির মান আরও উন্নত হবে। তবে রাজনীতির গুণগত মান পরিবর্তন করা দরকার তার জন্য প্রয়োজন নেতৃত্ব নির্বাচনে সঠিক প্রক্রিয়া অবলম্বন করা। এর জন্য প্রয়োজন আপনাদের মতো রাজনৈতিক সচেতন নাগরিক।

গণতন্ত্র উদ্ধারে পুলিশেরও গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রয়েছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, গণতন্ত্র ও আইনের শাসন প্রতিষ্ঠায় অবশ্যই পুলিশের ভূমিকা আছে। সবাই চায় পুলিশ তার শপথ মেনে দায়িত্ব পালন করুক। দেশের জনগণকে শ্রদ্ধা করুক, কারণ জনগণ ক্ষমতার মালিক। নিজাম উদ্দিন আরো বলেন, সরকার যদি নিজেকে জনগণের সরকার মনে করেন অবশ্যই বৈষম্য হ্রাস করবেন। কেউ দরিদ্র থাকবে আর কেউ সম্পদের পাহাড় গড়বে এটা স্বাধীন দেশে কাম্য নয়। তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করে বলেন, সবাই মিলে ঐক্যবদ্ধ হলে আমরা সফল হব।

বাংলাদেশ পেশাজীবী অধিকার পরিষদের চট্টগ্রাম জেলার আহবায়ক ইঞ্জিনিয়ার মোহাম্মদ নেজাম উদ্দিন আকাশের সভাপতিত্বে, চট্টগ্রাম মহানগর যুব অধিকার পরিষদ’র সাবেক যুগ্ম সদস্য সচিব আরিফ জামান এবং চট্টগ্রাম জেলা পেশাজীবী পরিষদের সদস্য সচিব মনিরুল ইসলামের পরিচালনায় প্রধান বক্তার বক্তব্য রাখেন গণ অধিকার পরিষদ চট্টগ্রাম জেলার সিনিয়র যুগ্ম আহবায়ক মুসলেহ উদ্দিন, বিশেষ অতিথি ছিলেন গণ অধিকার পরিষদ চট্টগ্রাম জেলার সিনিয়র যুগ্ম আহবায়ক আবুল বশর, যুগ্ম আহবায়ক মোশাররফ হোসেন।

বক্তব্য রাখেন যুগ্ম আহবায়ক রোকেয়া সালমা, ছাত্র নেতা লোকমান হোসেন, নাসরীন আকতার, এ আর রাজীব, রিদুয়ান সিদ্দিকী, ইমন মাহমুদ, যুব নেতা আলম খানসহ প্রমুখ নেতৃবৃন্দ।

বক্তারা বলেন, বাংলাদেশের আগামী দিনের রাজনীতি গণ অধিকার পরিষদের হাত ধরেই এগিয়ে যাবে। গণ অধিকার পরিষদকে বাদ দিয়ে বাংলাদেশের রাজনীতিতে কেউ কিছু করতে পারবে না। খুব অল্প সময় আছে, তাই দ্রুততার সঙ্গে তৃণমূলে গণ অধিকার পরিষদকে আরও শক্তিশালী করতে হবে। এ জন্য জেলা ও উপজেলা পর্যায়ে কর্মসূচি বাস্তবায়ন করবে গণ অধিকার পরিষদ।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর