মেহেরপুরে জমির আইলে আগাছা রাখাকে কেন্দ্র করে ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ সভাপতিকে পিটিয়ে আহত।

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • আপডেট টাইম : বুধবার, ২৮ এপ্রিল, ২০২১
  • ১৮৬ বার পঠিত

 

জমির আইলে আগাছা রাখাকে কেন্দ্র করে ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ সভাপতিকে পিটিয়ে আহত করা হয়েছে।
ঘটনাটি ঘটেছে বুধবার (২৮ এপ্রিল), মেহেরপুর জেলার গাংনী উপজেলার বামুন্দী ইউনিয়নের তেরাইল গ্রামে।
ঘটনার বিবরণে জানা যায়, বামুন্দী ইউনিয়নের ৮ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি তেরাইল পূর্বপাড়ার জিল্লুর রহমান (৪০) নতুন আবাদের জন্য নিজ জমিতে যান এবং সেচের ব্যবস্থা করেন। পূর্বে তামাকের আবাদ করায় কিছু তামাকের গোড়া / শিকড় চাষের পরও জমিতে থেকেই যায়। নতুন আবাদে এসব আগাছা ক্ষতিকর হওয়ার সম্ভাবনা থাকে এজন্য তা পরিস্কার করে জমির আইলে রাখে।
কিন্তু পার্শ্ববর্তী জমির মালিক একই গ্রাম তেরাইলের আব্দুর রাজ্জাকের ছেলেরা তাতে বাধাদান করলে কথা কাটাকাটি হয়ে তা থেমে যায়।
থেকে যাওয়ার কিছুক্ষণ পর বিকেল ৫ টার দিকে নতুন করে আব্দুর রাজ্জাকের ছেলে শরিফুল, সাইফুল, মাজেদ এবং নজরুল ইসলামের ছেলে মাহফুজ নিড়ানি, লাঠি ও ফলা দিয়ে এলোপাতাড়ি পিটিয়ে আহত করে। আওয়ামী লীগ সভাপতি জিল্লুর রহমান একা থাকায় তাদের বিরুদ্ধে পেরে ওঠেনি। অগত্যা উপায়হীন হয়ে পিটুনি খেতে খেতে চিৎকার করতে থাকেন। খবর পেয়ে তার ভাইয়ের ছেলে সভাপতি জিল্লুর রহমানকে গাংনী উপজেলা হেলথ্ কমপ্লেক্স এ নিয়ে আসেন। প্রাথমিক পর্যায়ে ধারণা করা হচ্ছে তার পায়ের হাড় ভেঙে গেছে। গাংনী উপজেলা হেলথ্ কমপ্লেক্স এর কর্তব্যরত চিকিৎসক পরবর্তী Better Treatment এর জন্য X-ray সহ অন্যান্য পরীক্ষার নিরিক্ষার পার্শ্ববর্তী ক্লিনিকে পাঠিয়েছেন বলে জিল্লুর রহমানের ভাইয়ের ছেলে জানান। মামলার প্রস্তুতি চলছে। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত তেরাইল গ্রামের মেম্বার ৮ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ সভাপতি জিল্লুর রহমানের কাছে এসে পৌঁছেছে।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর