উলিপুরে অটোরিক্সা ছিনতাই আটক-২

নয়ন দাস,কুড়িগ্রাম জেলা প্রতিনিধিঃ
  • আপডেট টাইম : বৃহস্পতিবার, ২ সেপ্টেম্বর, ২০২১
  • ৫৩৬ বার পঠিত

 

কুড়িগ্রামের উলিপুর পৌরসভার রাজারামক্ষেত্রী ভগীরতল নামক এলাকায় এক অটো রিকসা চালক কে ধারালো অস্ত্রের আঘাতে আহত করে অটো ছিনতাই কালে স্থানীয় জনগন কর্তৃক সবুজ নামের একজন ছিনতাই কারী আটক হয় । এসময় অপর সহযোগি পালিয়ে যেতে সক্ষম হয়। উলিপুর থানা পুলিশ আহত অটোচালক কে উদ্ধার করে উলিপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসার জন্য ভর্তি করে । পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে সবুজ কে আটক করে । আটক সবুজ(২৫) উলিপুর পৌরসভার হায়াৎখাঁ নিবাসী মাছ বিক্রেতা আনছার আলীর পুত্র।

ঘটনাটি ঘটেছে মঙ্গলবার (৩১ আগষ্ট) আনুমানিক রাত সাড়ে ৯ টায় উলিপুর পৌরসভার রাজারামক্ষেত্রী ভগীর তল নামক এলাকায়। অটোরিকশা তে যাত্রী পরিচয়ে থাকা। মূল অভিযুক্ত ইমরান অটোচালক মিজানুর রহমান কে ধারালো অস্ত্রের আঘাতে আহত করে মোবাইল ফোন ও নগদ টাকা নিয়ে পালিয়ে যায়। ভূক্তভূগী অটোচালক ও স্থানীয়দের ধারনা, অটোরিকশায় আরোহী বেশে দুইজন থাকলেও ঘটনার আশেপাশে আরো কয়েকজন দুস্কৃতিকারী অবস্থান করছিলো। অটোচালকের সাহসী ভূমিকা ও চিৎকারে আশেপাশের লোকজন এগিয়ে আসলে দুস্কৃতকারীরা কেটে পরে।

স্থানীয় প্রত্যক্ষদর্শী ও আটক সবুজের তথ্যমতে উলিপুর থানার পুলিশ পরিদর্শক তদন্ত ওসি রুহুল আমিনের দিকনির্দেশনায় উলিপুর পৌর বিট অফিসার এসআই হারিছের নেতৃত্বে পুলিশের চৌকস একটি টিম ঐ রাতেই অভিযান পরিচালনা করে ইমরান সরকার (২৮) কে ছিনতাই কাজে ব্যবহৃত ধারালো বড় চাকু ( ছোরা) সহ আটক করে। আটক ইমরান উলিপুর হায়াৎখাঁ এলাকার ঝরু শেখের পুত্র।

আহত অটোচালক উলিপুর উপজেলার ধামশ্রেণী ইউনিয়নের পোদ্দারপাড়া নিবাসী মোক্তার আলীর পুত্র মিজানুর রহমান (২৫)।উলিপুর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অটোচালক সম্পর্কে কর্তব্যরত চিকিৎসক জানান তার ডান হাতের কবজি ও বৃদ্ধাঙ্গুলি ধারালো অস্ত্রের আঘাতে কেটে গেছে ও গলায় সামান্য আঘাতের চিহৃ থাকলেও সে সম্পুর্ন শংকামুক্ত।

উলিপুর থানার পুলিশ পরিদর্শক তদন্ত (ওসি) রুহুল আমিন জানান, খবর পাওয়ামাত্র পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে ভিক্টিম কে অটো রিক্সা সহ উদ্ধার করা হয়েছে। এ ঘটনায় সবুজ ও ইমরান নামের দুই জন কে আটক করা হয়েছে। আটক সবুজ ও ইমরানের দেয়া তথ্যমতে তাদের সহযোগিদের সনাক্ত ও আটকে পুলিশি অভিযান অব্যাহত রয়েছে। বুধবার (১ সেপ্টেম্বর) দুপুড়ে তাদের বিরুদ্ধে নিরমিত মামলা রুজু করে বিজ্ঞ আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরন করা হয়েছে।

উল্লেখ্য এলাকায় উঠতি বয়সের বেশকিছু মাদকাসক্ত যুবক বিভিন্ন অপরাধে জড়িয়ে পরছে বলে বিভিন্ন ভুক্তভোগী ও এলাকাবাসীর অভিযোগ রয়েছে। তাদের অধিক জিজ্ঞাসাবাদের দাবী জানিয়েছেন এলাকার মানুষজন।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর