কালীগঞ্জে কলেজ ছাত্রী বিয়ের দাবীতে কাউন্সিলরের বাড়ীতে অনশন।

আজগর পাঠান, কালীগঞ্জ (গাজীপুর) প্রতিনিধিঃ
  • আপডেট টাইম : বৃহস্পতিবার, ৯ জুন, ২০২২
  • ৪৬৯ বার পঠিত

 

গাজীপুরের কালীগঞ্জে কাউন্সিলর পুত্রের সাথে কলেজ ছাত্রীর অশ্লীল ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল। কলেজ ছাত্রীকে বিয়ের দাবীতে পৌর কাউন্সিলরের বাড়ীতে অনশন।
স্থাণীয় সূত্রে জানা যায়, সরকারি কালীগঞ্জ শ্রমিক কলেজের শিক্ষার্থী কালীগঞ্জ পৌরসভার ভাদগাতী গ্রামের এক নাবালিকার (১৭) সাথে কালীগঞ্জ পৌরসভার ৬ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো. আবদুস সালাম এর ছেলে আবু সুফিয়ান ইমু (২২) এর বিগত দুই বছর যাবৎ প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। পরবর্তীকালে তাদের প্রেমের সম্পর্ক শারিক সম্পর্কে রুপ নেয়। তারা বিভিন্ন সময় বিভিন্ন স্থানে শারিরীক সম্পর্কে লিপ্ত হলে কাউন্সিলর পুত্র তরুণীর অজান্তে একাধিক শারীরিক সম্পর্কের অশ্লীল ভিডিও ধারণ করে। এই ঘটনা জানাজানি হলে গত (৬জুন) সোমবার কাউন্সিলর পুত্র ও তার মা বিয়ের প্রস্তাব নিয়ে কলেজ ছাত্রীর বাড়িতে যায়। মেয়ের মা তাদের প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করায় অভিযুক্ত আবু সুফিয়ান ইমু রাতেই তাদের শারিরীক সম্পর্কের অশ্লীল ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল করে দেয়। পরে এই বিষয়টি কলেজ ছাত্রী অবগত হয়ে তাৎক্ষণিক ছেলের বাড়ীতে জানার জন্য আসলে তাকে আটক করে আবারও তার সাথে শারীরিক সম্পর্ক শেষে বাড়ী থেকে বের করে দেওয়ার চেষ্টা চালায়। সংবাদ লেখা পর্যন্ত বিয়ের দাবিতে মেয়ে কাউন্সিলরের বাড়ীতে অবস্থান করছেন। এ ঘটনায় এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে।
এ বিষয়ে কলেজ ছাত্রীর মা বলেন, আমার কলেজ পড়–য়া মেয়ের জীবটা কাউন্সিলরের ছেলে আবু সুফিয়ান ইমু শেষ করে দিয়েছে। সমাজে আমাদের আর কোন মান সম্মান রইল না। মেয়ের ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের পর থেকে আমরা বেচে আছি না মরে গেছি জানি না। আপনারা সবাই মিলে আমার মেয়ের একটা ব্যবস্থা করে দিন।
এ বিষয়ে কালীগঞ্জ পৌরসভার ৬ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো. আবদুস সালাম বলেন, বিষয়টি নিয়ে আমি দুঃখিত ও মরমাহত। আমি একজন জনপ্রতিনিধি। আপনাদের যা মনে চায় তাই করুন। এ বিষয়ে আমি কিছুই করতে পারব না।
স্থাণীয়রা বলেন, একজন জনপ্রনিধি হয়ে তার ছেলের অন্যায়ের বিষয়ে কোন ব্যবস্থা নিতে পারবেন না। তবে আমাদের আর কি সহায়তা করবেন? আমরা কাউন্সিলরের ছেলের দৃষ্টান্তমূলক বিচার দাবী করি।
এ বিষয়ে কালীগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ মো. আনিসুর রহমান বলেন, বিষয়টি শুনেছি। কোন লিখিত অভিযোগ পাইনি। অভিযোগ পেলে তদন্ত সাপেক্ষে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর