গাংনীতে জমি জায়গা সংক্রান্ত জের ধরে প্রতিপক্ষের হামলায় আহত-৭

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • আপডেট টাইম : মঙ্গলবার, ১৪ ডিসেম্বর, ২০২১
  • ১৬৩ বার পঠিত

মেহেরপুরের গাংনীতে জমি জায়গা সংক্রান্ত জের ধরে প্রতিপক্ষের হামলায় ০৭ জন আহত হয়েছে। আজ মঙ্গলবার সকাল ৮টার দিকে উপজেলার তেঁতুলবাড়িয়া গ্রামের মোল্লাপাড়ায় এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। আহতরা হলেও উপজেলা তেঁতুলবাড়িয়া গ্রামের উল্লাপাড়ার মৃত মোজাম্মেল হকের ছেলে কলিমুদ্দিন(৩২), মৃত আব্দুল কাদেরের ছেলে জাহাঙ্গীর হোসেন(৫০), কেয়ামত আলীর ছেলে হাফিজুল ইসলাম(৪৫), ওসমান গনির ছেলে মোস্তাফিজুর রহমান সুমন(৩৪), পেয়ার বক্সের ছেলে বুদু আলী(৫০), কাসেম আলীর ছেলে কাফিরুল ইসলাম(৩৫), শামসুল হকের ছেলে কালু(৪০)।

 

আহত কলিমুদ্দিন জানান, সকালে মাঠে গমের জমিতে আমরা পানি দেওয়ার জন্য যাই। এ সময় হযরত আলীর লোকজন দেশীয় অস্ত্র নিয়ে আমাদের উপর অতর্কিত হামলা চালায়। আমাদের বেশ কয়েকজন আহত হয়। জমির মালিক আবুল কাশেম জানান,১৯৯৮ সাল ৬৭শত সালে মহামান্য আদালত জমিটি আমার পক্ষে রায় দেয় এরপর থেকে এসে বিভিন্ন সময় আমার সাথে ঝামেলা করে আসছিল।

 

গতকাল সোমবার(১৩ডিসেম্বর) গাংনী থানায় একটি সালিশ মীমাংসা হওয়ার পর আজ সকালে আমার প্রতিপক্ষ হযরত আলীর লোকজন দেশীয় অস্ত্র নিয়ে হামলা চালিয়ে ৭ জনকে পিটিয়ে আহত করে। পরে তাদের উদ্ধার করে গাংনী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসি। এ বিষয়ে হযরত আলীর মুঠোফোনে ফোন দিলে তার নাম্বারটি বন্ধ পাওয়া যায়।

 

গাংনী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের সহকারী সার্জন শায়লা আহমেদ জানান, মারামারির সংক্রান্ত জেরে উপজেলা তেঁতুলবাড়িয়া গ্রামের ৭জন উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আসে। এরমধ্যে বুদু আলী ও কাফিরুল ইসলামের অবস্থার অবনতি হওয়ায় কুষ্টিয়া মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করা হয়েছে। গাংনী থানার অফিসার ইনচার্জ আব্দুর রাজ্জাক জানান, মারামারির ঘটনায় ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। আহতদের পরিবারের পক্ষ থেকে লিখিত অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর