গাংনীতে শ্যালো ইঞ্জিন চালিত আলগামন ও মোটরসাইকেলের মুখোমুখি সংঘর্ষ, নিহত-১, আহত -৩

মানবী,মেহেরপুর জেলা প্রতিনিধিঃ
  • আপডেট টাইম : রবিবার, ৩ জুলাই, ২০২২
  • ২৭৬ বার পঠিত

মেহেরপুরের গাংনীতে শ্যালো ইঞ্জিন চালিত আলগামন ও মোটরসাইকেলের মুখোমুখি সংঘর্ষে আলগামনের চালক রবিউল ইসলাম (৩২) নিহত হয়েছে। এ ঘটনায় গুরুতর আহত হয়েছে মোটর সাইকেলের ৩ আরোহী। শনিবার রাত ৯ টার দিকে মেহেরপুর-কুষ্টিয়া সড়কের গাংনী উপজেলার আকুবপুরে মটমুড়া ইউনিয়ন পরিষদের সামনে এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহত রবিউল ইসলাম গাংনী উপজেলার তেঁতুলবাড়ীয়া ইউনিয়নের করমদী গ্রামের সরকার পাড়ার আকমল হোসেনের ছেলে।

 

ঘটনায় আহতরা হলেন, উপজেলার বাওট গ্রামের শফিরুল ইসলামের ছেলে সাইফ (১৮), জমির উদ্দীনের ছেলে অন্তর (১৮) ও রিয়াজুল ইসলামের ছেলে জুনায়েদ (১৮)। প্রত্যাক্ষদর্শীরা জানায়, আলগামনটি কুষ্টিয়া থেকে আসছিল এবং ৩ জন আরোহী নিয়ে একটি মটরসাইকল বাওট থেকে খলিশাকুন্ডীর দিকে যাচ্ছিল। তারা উভয়ে মটমুড়া ইউনিয়ন পরিষদের সামনে এসে পৌঁছালে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এ সংঘর্ষে ৩ মটরসাইকেল আরোহী ও আলগামনের চালক গুরুতর আহত হয়।

 

এ সময় কুমারীডাঙ্গা পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ আব্দুল মজিদ, এএসআই শাফকাত হক সংগীয় ফোর্স নিয়ে গ্রাম পুলিশ সম্রাট ও স্থানীয়দের সহযোগীতায় আহতদের উদ্ধার করে স্থানীয় ক্লিনিক ও হাসপাতালে পাঠায়। সেই সাথে দূর্ঘটনার কবলে পড়া মোটরসাইকেল ও আলগামন উদ্ধার করে ক্যাম্প হেফাজতে নেয়। এদিকে আলগামন চালক রবিউল ইসলামকে প্রথমে বামুন্দী আল শেফা ক্লিনিকে নেওয়া হলে তার অবস্থা আশংকা জনক দেখে কুষ্টিয়া মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করে সেখানকার কর্তব্যরত চিকিৎসক। পরে কুষ্টিয়া যাওয়ার পথে আকুবপুর নামক স্থানে পৌঁছালে তার মৃত্যু হয়।

 

শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত আহত ৩ মোটরসাইকেল আরোহী কুষ্টিয়া মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছে। তাদের অবস্থাও আশংকা জনক। গাংনী থানার ওসি আব্দুর রাজ্জাক জানান, ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। নিহতের পরিবারের লোকজন অভিযোগ দিলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর