মানবতার কল্যাণে গাংনীর কল্যাণপুর জাগ্রত বিবেক যুবসমাজ

নিজস্ব প্রতিনিধিঃ
  • আপডেট টাইম : শনিবার, ২৯ জানুয়ারী, ২০২২
  • ২৫৫ বার পঠিত

কল্যাণপুর জাগ্রত বিবেক যুবসমাজ। সর্বদা মানবতার কল্যাণেই যারা কাজ করে। শতশত মানুষের পাশে দাঁড়িয়ে সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে মানুষের হৃদয়ে স্হান করে এগিয়ে চলেছেন সামনের দিকে। মেহেরপুর জেলার গাংনী উপজেলার তেঁতুল বাড়িয়া ইউনিয়নের কল্যাণপুর গ্রামে একটি চাটাইয়ের বেড়া আর টিনের চালের একটি ক্লাব রয়েছে।

 

যে ক্লাবটির সামনের দিকের বেড়ায় লাল সবুজের একটি পতাকা রয়েছে। দেখলে বোঝায় যাবেনা, এ ক্লাবটিতে বসেই জনকল্যাণমুখী কর্মকান্ডে ব্যস্ত থাকেন সেই সুন্দর মনের মানুষগুলো। যাদের অক্লান্ত পরিশ্রম তিল তিল করে গড়ে উঠেছে “কল্যাণপুর জাগ্রত বিবেক যুবসমাজ” নামের স্বেচ্ছাসেবি সংগঠনটি। যেটির উপকার ভোগ করছেন শতশত অসহায় মানুষ। সংগঠনটির প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকেই অসহায় ও দুস্থ মানুষের পাশে থেকে সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন।

 

শুধু মানুষের পাশেই না, মসজিদ নির্মান কাজেও সংগঠনটি সহায়তা দিয়ে থাকেন। মুলতঃ দেশের বাইরে অবস্থানকারী প্রবাসি বাংলাদেশি ভাইয়েদের ঘাম ঝরানো অর্থ দিয়েই এ সংগঠনটি চলে। যার উপকারভোগ করেন, গাংনী উপজেলার তেঁতুল বাড়িয়া ও কাজিপুর ইউনিয়নের অসংখ্য গ্রামের মানুষ।

 

সম্প্রতি গাংনী উপজেলার কাজিপুর ইউনিয়নের হাড়াভাঙ্গা গ্রামের সুরমিনা আক্তারের হার্ট লিক ও ভাল্ব নষ্ট হয়ে গেলে মোটা অংকের আর্থিক সহযোগিতা করেন সংগঠনটি। গত শুক্রবার একই গ্রামের কালিতলা মসজিদ নির্মানের জন্যও মোটা অংকের আর্থিক সহায়তা দিয়েছেন। শতশত অসুস্থ্য মানুষকে ওষুধ থেকে শুরু করে চিকিৎসা সেবার ব্যবস্থা, নগদ অর্থ সহায়তাসহ বিভিন্ন ভাবে সাহায্য সহযোগিতা করে আসছে কল্যাণপুর জাগ্রত বিবেক যুবসমাজ নামের সংগঠনটি। আমাদের দেশে সরকারি সাহায্য সহযোগিতা একেবারেই অপ্রতুল বললে ভুল হবেনা।

 

 

কারণ রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দের কেউ মামা, খালু থাকলে সাহায্য সহযোগিতা পাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। অন্যথায় সাহায্য সহযোগিতা আশা করা ভুল হবে। গনপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা এর তহবিল থেকে চিকিৎসা সহায়তা আসলেও সে অর্থ দিয়ে স্বজনপ্রীতি হবার অসংখ্য নজির রয়েছে। সেক্ষেত্রে অসহায় মানুষের পাশে থাকতে মানুষের আস্হা অর্জন করেছে কল্যাণপুর জাগ্রত বিবেক যুবসমাজ। জরুরি ভিত্তিতে প্রয়োজনে সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিয়ে থাকেন স্বেচ্ছাসেবি সংগঠনটি। এক কথায় এলাকার মানুষের বিপদের বন্ধু বলতে কল্যাণপুর জাগ্রত বিবেক যুবসমাজ।

 

সিংগাপুর, মালয়েশিয়া, বাহরাইন, সৌদি আরবসহ মধ্যপ্রাচের দেশগুলোতে অবস্থানকারী প্রবাসি বাংলাদেশি ভাইয়েরাই সংগঠনটির অর্থের যোগান দিয়ে থাকেন। পরিচালনা করেন কল্যাণপুর জাগ্রত বিবেক যুবসমাজের দেশে অবস্থানকারী অন্যান্য সদস্যরা। যাদের বসবাস গাংনী উপজেলার তেঁতুল বাড়িয়া ও কাজিপুর ইউনিয়নের গ্রামগুলোতেই। কল্যাণপুর জাগ্রত বিবেক যুবসমাজ এর মুল কমিটি বৃন্দতে যারা রয়েছেন, সোহানুর রহমান (সভাপতি), মোঃ হোসাইন (সহ-সভাপতি), ইসরাফিল হক (সাধারণ সম্পাদক), সেলিম রেজা (সহ-সাধারন সম্পাদক), নাঈম রেজা (ক্যাশিয়ার) এবং উপদেষ্টা মন্ডলীতে সাহাজুল ইসলাম, হাবিবুর রহমান, স্বপন আহমেদ, মোঃ হানিফ, এরশাদ হুসাইন জয়, মিশকাত আলী ও হেলাল আহমেদ।

 

 

এরা কিন্তু সকলেই সিংগাপুর প্রবাসি। যাদের প্রচেষ্টায় চলছে সংগঠনটি। মানবতার কল্যাণে নিয়জিত থেকে দৃষ্টান্ত স্হাপন করেছে সংগঠনটি। সংগঠনটির কার্যক্রমকে প্রসারিত করতে কিছুটা সরকারিভাবে সহযোগিতা করা হলে তাদের আগামী দিনের পথচলা অনেকটা সহজ হবে বলে এলাকাবাসী মন্তব্য করেছেন। এব্যাপারে এলাকাবাসীরা মেহেরপুর জেলা প্রশাসক, গাংনী উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও সমাজসেবা অধিদপ্তরের দৃষ্টি আকর্ষণ কামনা করেন।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর